শুক্রবার, ২৪ মে ২০২৪, ০৩:৩৭ পূর্বাহ্ন

সংবাদ শিরোনাম :
যশোরের কেশবপুরে শান্তি স্থাপন ও সহিংসতা নিরসনে (পিএফজি, র) সভা অনুষ্ঠিত। কালের খবর রায়পুরার ছাত্রলীগ নেতা মামুনকে জড়িয়ে মিথ্যা ও হয়রানি মূলক ধর্ষণ মামলাসহ একাধিক মামলা করায় সর্বমহলে নিন্দা। কালের খবর মাদকদ্রব্য নিয়ন্ত্রণ আইন-২০১৮ এর ৫৬ ধারার প্রয়োগ’ শীর্ষক সেমিনারে.প্রধান অতিথি সিএমপি কমিশনার। কালের খবর সহিংসতা নয়-শান্তির জন্য আমরা-এই শ্লোগান কে সামনে রেখে বাঘারপাড়ায় অনুষ্ঠিত হলো (পিএফজির) সম্মিলিত কার্যক্রম ও পরিকল্পনা প্রণয়ন সভা। কালের খবর ঢাকা জেলা রেজিস্ট্রার অহিদুল ইসলাম সাময়িক বরখাস্ত। কালের খবর বাঘারপাড়া প্রেস ক্লাবের সাবেক সভাপতি সাংবাদিক লক্ষণ চন্দ্র মন্ডলের মৃত্যুতে বিভিন্ন মহলের শোক। কালের খবর যুবদের নেতৃত্বে সঠিক কর্মপরিকল্পনা গ্রহনের ফলে , সমাজে সহিংসতা নিরসন ও শান্তি স্থাপন হতে পারে। কালের খবর কোরবানির পশু প্রস্তুত করতে ব্যস্ত সাতক্ষীরার খামারিরা। কালের খবর চট্টগ্রামের ইপিজেডে ছুরিকাঘাতে যুবক খুন, ঘটনায় জড়িত মূল হোতাসহ ২জন গ্রেপ্তার। কালের খবর রাজধানী ঢাকা শহরে কোনো ব্যাটারিচালিত রিকশা চলবে না : সড়ক পরিবহনমন্ত্রী। কালের খবর
গৃহবধূকে গাছে বেঁধে নির্যাতন, আটক-২

গৃহবধূকে গাছে বেঁধে নির্যাতন, আটক-২

কালের খবর প্রতিবেদক : সাতক্ষীরার কালিগঞ্জে মধ্যযুগীয় কায়দায় এক গৃহবধূকে গাছের সঙ্গে দড়ি দিয়ে বেঁধে লাঠি ও সাবল দিয়ে পিটিয়ে আহত করার অভিযোগ উঠেছে।

এ ঘটনায় আহত গৃহবধূর ছোট ভাই লাভলু মোল্লা বাদী হয়ে নারী ও শিশু নির্যাতন দমন আইনে কালিগঞ্জ থানায় মামলা দায়ের করেছেন। গৃহবধূর স্বামী অহিদুল্লাহ গাজীসহ তার পরিবারের ৭ জনকে আসামী করা হয়েছে। পুলিশ শনিবার রাতেই দুই জনকে আটক করেছে।
আহত গৃহবধূর নাম মাহফুজা খাতুন (৩০)। সে শ্যামনগর উপজেলার নূরনগর ইউনিয়নের দক্ষিণ হাজিপুর গ্রামের আব্দুল গফফারের মেয়ে ও কালিগঞ্জ উপজেলার আড়ংগাছা গ্রামের অহিদুল্লাহ গাজীর স্ত্রী। পুলিশ আহত গৃহবধূকে উদ্ধার করে কালিগঞ্জ স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করেছে।
মাহফুজা খাতুনের বড় ভাই বাবলুর রহমান মোল্লা জানান, ১৪ বছর আগে (২০০৪ সালে) আমার বোনের সাথে কালিগঞ্জ উপজেলার আড়ংগাছা গ্রামের মৃত আব্দুল্লাহ গাজীর ছেলে অহিদুল্লাহ গাজীর সঙ্গে ইসলামী শরিয়াহ মোতাবেক বিয়ে হয়। এর পর তাদের ঘরে দুটি কন্যা সন্তানে জন্ম হয়।
সম্প্রতি বেশ কিছুদিন ধরে তাদের স্বামী ও স্ত্রীর মধ্যে দ্বন্দ চলছিলো। এর জের ধরে মাহফুজা আমাদের বাড়ি চলে আসে। এক সুযোগে তার স্বামী অহিদুল্লাহ আমার বোনকে একটি ভুয়া তালাক দেয় এবং তার বড় মেয়ে তাওছিয়া খাতুনকে ঘরে আটকে রাখে। এ খবর জানতে পেরে সে তার মেয়েকে দেখতে ও তালাকের বিষয়টি জানতে শনিবার বিকেলে শ্বশুর বাড়িতে যায় । এ সময় তার স্বমী অহিদুল্লাহসহ তার পরিবারের সকলেই মিলে তাকে গাছের সাথে বেঁধে লাঠি দিয়ে পিটিয়ে নির্যাতন করে।
ব্যাপক মারধরের এক পর্যায়ে মাহফুজা নিহত হয়েছে মনে করে তারা পরিবারের সবাই বাড়ি ছেড়ে পালিয়ে যায়। পরে স্থানীয়রা পুলিশে খবর দিলে পুলিশ এসে তাকে উদ্ধার করে কালিগঞ্জ স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করে। বর্তমানে সে সেখানে মৃত্যুর সাথে লড়াই করছে।
কালিগজ্ঞ থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) সুবির দত্ত বলেন-এ ঘটনা শুনার সাথে সাথেই আমরা সেখানে গিয়ে আহত গৃহবধূকে উদ্ধার করি এবং এ ঘটনায় জড়িত থাকার অভিযোগে দুই জনকে আটক করি।

দৈনিক কালের খবর নিয়মিত পড়ুন এবং বিজ্ঞাপন দিন..

কালের খবর মিডিয়া গ্রুপ লিমিটেডের একটি প্রতিষ্ঠান
Desing & Developed BY ThemesBazar.Com