শুক্রবার, ০৩ ডিসেম্বর ২০২১, ১০:২৫ অপরাহ্ন

সংবাদ শিরোনাম :
প্রধান শিক্ষিকার বিরুদ্ধে দুর্নীতির অভিযোগ, তদন্ত করছে দুদক ও মাউশি। কালের খবর তাড়াশে সেচ্ছাসেবকলীগের সম্মেলন অনুষ্ঠিত। কালের খবর যশোর সদরে ইউপি নির্বাচন ৫ জানুয়ারি। কালের খবর কুমড়া বড়ি তৈরি করতে ব‍্যস্ত তাড়াশের কারিগররা। কালের খবর বাঘারপাড়ায় নির্বাচনী সহিংসতায় চেয়ারম্যান প্রর্থীসহ আহত ২০-অফিস ভাংচুর। কালের খবর যশোর সদর হাসপাতালে দালালদের কাছে জিম্মি রোগীরা। কালের খবর উৎপাদনে নতুন ‘দেশি মুরগি’, ৮ সপ্তাহে হবে এক কেজি। কালের খবর ইউপি নির্বাচনে শাহজাদপুরের ১০ ইউনিয়নে আ.লীগের মনোনয়ন পেলেন যারা। কালের খবর যশোরের শার্শায় শোকজের জবাবের আগেই যুবলীগ নেতা বহিষ্কার! কালের খবর জাতীয় শ্রমিক লীগের উদ্যোগে বীর মুক্তিযোদ্ধা ফজলুল হক মন্টুর প্রথম মৃত্যু বার্ষিকী পালিত। কালের খবর
ভ্রাম‌্যমাণ দোকান-হকারের দখলে ফুটওভার ব্রিজ, দুর্ভোগে পথচারীরা । কালের খবর

ভ্রাম‌্যমাণ দোকান-হকারের দখলে ফুটওভার ব্রিজ, দুর্ভোগে পথচারীরা । কালের খবর

রাজধানীর পল্টন, শাহবাগ, ফার্মগেট, বাংলামটর, রায়েরবাগ, শনির আখড়ায় সরেজমিন দেখা যায়, ব্রিজে বসেছে বিভিন্ন পণ্যের দোকান।  মোবাইল ফোনে ব্যবহৃত এক্সেসরিস, বেল্ট, মানিব্যাগ, ওজন মাপার যন্ত্র, পানির পট, বিভিন্ন ধরনের ব্যাগ, গেঞ্জি, শার্ট, মোজা, ব্রাশ, টেবিল ক্লথ, কানের দুলের দোকান নিয়ে বসেছেন ভ্রাম্যমাণ বিক্রেতারা।  ক্রেতাদের দৃষ্টি আকর্ষণের জন্য হাকডাক দিচ্ছে। এসব দোকানের কারণে পথচারীরা ব্রিজ দিয়ে সহজে হাঁটতে পারছিলেন না।

 পথচারী মাহফুজুল ইসলাম বলেন, ফুটওভার ব্রিজে হকাররা দোকান নিয়ে বসায় ঠিকভাবে হাঁটা যায় না।  স্বাভাবিকভাবে হাঁটা-চলা করতে পারেন না পথচারীরা।  আর ব্রিজে হকার বসে বলে জায়গাও সরু হয়ে যায়।

শাহবাগ হাসপাতাল থেকে মেয়েকে নিয়ে ফুটওভার ব্রিজ পার হচ্ছিলেন শাফিয়া রহমান। তিনি বলেন, ব্রিজে ঠেলাঠেলি করে চলতে হয়। এখানে চারপাশের ফুটপাত সারা বছর হকারদের দখলে থাকে। ব্রিজে উঠলেই অস্বস্তিতে পড়তে হয়।  দিন দিন হকারের সংখ্যা বেড়েই চলেছে।

পল্টনে শফিকুল ইসলাম নামের এক হকার বলেন, ব্রিজে ব্যবসা করতে হলে নিয়মিত টাকা দিতে হয়।  লাইনম্যান এসে প্রতি দোকান থেকে দিনে ২০০ টাকা করে নেন।  ফুটওভার ব্রিজের দোকানদার মো. সাগর বলেন, প্রতিদিন সকাল সাড়ে ৯টা থেকে রাত ৯টা পর্যন্ত দোকান করি।  পরিবার আছে।  টাকা আয়ের জন্য বসেছি।

এ বিষয়ে জানতে চাইলে পল্টন থানার এসআই আজাদুর রহমান বলেন, ফুটওভার ব্রিজ হাঁটার জন্য দেওয়া হয়েছে। এখানে কোনো দোকান বসতে দেওয়া হবে না।  দ্রুত তাদের (হকারদের) উচ্ছেদ করা হবে।

দৈনিক কালের খবর নিয়মিত পড়ুন এবং বিজ্ঞাপন দিন..

কালের খবর মিডিয়া গ্রুপ লিমিটেডের একটি প্রতিষ্ঠান
Desing & Developed BY ThemesBazar.Com