মঙ্গলবার, ২১ মার্চ ২০২৩, ০৬:৪১ পূর্বাহ্ন

সংবাদ শিরোনাম :
সরকারের উন্নয়নের সুফল : নবীনগরে নদীভাঙন থেকে মুক্তি পাচ্ছে মেঘনা পাড়ের ৪ গ্রামের মানুষ। কালের খবর গলাচিপা পৌর স্বেচ্ছাসেবক লীগের সভাপতি পদপ্রার্থী-আরিফুর রহমান খান। কালের খবর চট্টগ্রাম মহানগর বিচার বিভাগ কর্তৃক আয়োজিত ‘মত বিনিময় সভায়, সিএমপি কমিশনার কৃষ্ণ পদ রায়। কালের খবর নবীনগরের সলিমগঞ্জ আবদুর রউফ মুসলিম উচ্চ বিদ্যালয়ের বার্ষিক ক্রীড়া প্রতিযোগিতা অনুষ্ঠিত। কালের খবর ঢাকা প্রেস ক্লাবের সৌদি আরবে কমিটি গঠন। কালের খবর। মুরাদনগরে জমকালো আয়োজনে ‘দৈনিক গণ মানুষের আওয়াজ’ পত্রিকার প্রতিষ্ঠাবার্ষিকী উদযাপন। কালের খবর বঙ্গবন্ধুর লক্ষ্য বাস্তবায়ন করতে যোগ্য নাগরিক দরকার: আলফাডাঙ্গায় সাবেক আইজিপি শহীদুল হক। কালের খবর নবীনগরের আ.লীগ সভাপতি সাবেক এমপি ফয়জুর রহমান বাদলের নির্বাচনী গণসংযোগ ও প্রচারনা শুরু। কালের খবর সুন্দরগঞ্জ স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে চিকিৎসা ক্ষেত্রে চালু হলো অপারেশন থিয়েটার। কালের খবর হত্যা-অত্যাচার করে আওয়ামী লীগকে কেউ ধ্বংস করতে পারেনি : প্রধানমন্ত্রী। কালের খবর
কংগ্রেসের সভাপতি পদে রাহুল গান্ধীর নাম ঘোষণা

কংগ্রেসের সভাপতি পদে রাহুল গান্ধীর নাম ঘোষণা

ফাইল ছবি

শুরুরও একটা সূচনা থাকে। সোমবার ভারতের রাজধানী নয়াদিল্লির ১০ জনপথে দলীয় কার্যালয়ে সেই সূচনাটাই করতে চেয়েছিলেন কংগ্রেস সভাপতি সোনিয়া গান্ধী। অনেকটা প্রত্যাশিতভাবেই দলের পরবর্তী সভাপতি হিসাবে রাহুল গান্ধীর নাম প্রস্তাব করেছে কংগ্রেস ওয়ার্কিং কমিটি এবং কোনো ধরনের বিরোধিতা ছাড়াই তা পাস হয়েছে।

পশ্চিমবঙ্গে বাংলা দৈনিক আনন্দবাজার বলছে, সব কিছু ঠিক থাকলে আগামী মাসে কংগ্রেস নতুন সভাপতি হিসাবে রাহুলকে পাবে। দলের সভাপতি পদে রাহুলের অভিষেকের পথ প্রশস্ত করতে সোমবার ওয়ার্কিং কমিটির বৈঠক ডেকেছিলেন সোনিয়া গান্ধী।

গত ১৭ বছর ধরে বিনা প্রতিদ্বন্দ্বিতায় সোনিয়াই দলের সভাপতির দায়িত্ব পালন করছেন। কিন্তু, গুজরাটের বিধানসভার ভোটের আগে রাহুলের রাজনৈতিক ওজন আরও বাড়াতে চায় কংগ্রেস। কংগ্রেসের সূত্রগুলো বলছে, সে লক্ষ্যেই তাকে সভাপতির পদে আনা হবে।

সোমবার কংগ্রেস মুখপাত্র রণদীপ সিংহ সুরজওয়ালা বলেন, ‘দলের পরবর্তী সভাপতি নির্বাচনের প্রক্রিয়া শুরু হয়েছে। রাহুল গান্ধীর নাম প্রস্তাব করেছে ওয়ার্কিং কমিটি। তা পাসও হয়েছে। যদি আর কেউ প্রার্থী হিসাবে মনোনয়ন দাখিল না করেন, তবে তিনিই দলের পরবর্তী সভাপতি হচ্ছেন।’

কংগ্রেস বলছে, সভাপতি পদে নির্বাচনের জন্য আগামী ১ ডিসেম্বর বিজ্ঞপ্তি জারি করা হবে। মনোনয়ন জমা দেয়ার শেষ তারিখ ৪ ডিসেম্বর। ওই দিন বিকাল ৩টা পর্যন্ত মনোনয়নপত্র জমা দেয়া যাবে। পরের দিন অর্থাৎ ৫ ডিসেম্বর সেই মনোনয়নপত্র যাচাই-বাছাই চলবে। মনোনয়নপত্র প্রত্যাহারের শেষ সময় ১১ ডিসেম্বর।

প্রার্থীদের চূড়ান্ত তালিকা প্রকাশ হবে ওই দিন বিকাল ৪টায়। আগামী ১৬ ডিসেম্বর নির্বাচন। গণনা এবং ফলপ্রকাশ ১৯ ডিসেম্বর। যদিও কংগ্রেস সূত্র বলছে, রাহুল ছাড়া এখন পর্যন্ত অন্য কোনো প্রার্থীর কথা তাদের জানা নেই। সম্ভাবনাও নেই বলে তাদের আশা। সে ক্ষেত্রে ৪ ডিসেম্বরই কংগ্রেস সভাপতি হিসাবে রাহুলের নাম ঘোষণা করা হতে পারে।

দৈনিক কালের খবর নিয়মিত পড়ুন এবং বিজ্ঞাপন দিন..

কালের খবর মিডিয়া গ্রুপ লিমিটেডের একটি প্রতিষ্ঠান
Desing & Developed BY ThemesBazar.Com