সোমবার, ২২ জুলাই ২০২৪, ০৭:২৭ অপরাহ্ন

সংবাদ শিরোনাম :
কোটাবিরোধী আন্দোলন-আবারও রাজনীতির মাঠে ইসমাইল চৌধুরী সম্রাট। কালের খবর চালের দাম আরও বাড়লো, সবজি আলু পেঁয়াজেও অস্বস্তি। কালের খবর খুনি ওসি প্রদীপের হাতে নির্যাতিত সাংবাদিকের আহাজারি। কালের খবর বন্দরে ৬ প্রতারকের বিরুদ্ধে আদালতে চাজশীট দাখিল। কালের খবর মুরাদনগরে মাদক বিরোধী সমাবেশ। কালের খবর সাংবাদিক জুয়েল খন্দকারের বিরুদ্ধে কাউন্সিলর সাহেদ ইকবাল বাবুর মিথ্যা মামলা প্রত্যাহারের দাবিতে প্রতিবাদ সভা অনুষ্ঠিত। কালের খবর জনস্বাস্থ্য প্রকৌশল অধিদপ্তরের ঠিকাদারদের সাথে লিরা গ্রুপ অব ইন্ডাস্ট্রিজ”র মতবিনিময় সভা-সম্পন্ন। কালের খবর গণপূর্তের নির্বাহী প্রকৌশলী আমান উল্লাহ বিরুদ্ধে কাজ না করেই সরকারি বরাদ্দের কোটি কোটি টাকা আত্মসাৎতের অভিযোগ!। কালের খবর স্ত্রীর যৌতুক মামলায়,ব্যাংক কর্মকর্তা রাশেদের শেষ রক্ষা মিলেনি বাকলিয়া থানা পুলিশের হাতে গ্রেফতার। কালের খবর নবীনগর থানা প্রেস ক্লাবের ত্রি-বার্ষিক সম্মেলনে কমিটি গঠন, সভাপতি মোঃ জসিম উদ্দিন, সাধারণ সম্পাদক মমিনুল হক রুবেল। কালের খবর
কংগ্রেসের সভাপতি পদে রাহুল গান্ধীর নাম ঘোষণা

কংগ্রেসের সভাপতি পদে রাহুল গান্ধীর নাম ঘোষণা

ফাইল ছবি

শুরুরও একটা সূচনা থাকে। সোমবার ভারতের রাজধানী নয়াদিল্লির ১০ জনপথে দলীয় কার্যালয়ে সেই সূচনাটাই করতে চেয়েছিলেন কংগ্রেস সভাপতি সোনিয়া গান্ধী। অনেকটা প্রত্যাশিতভাবেই দলের পরবর্তী সভাপতি হিসাবে রাহুল গান্ধীর নাম প্রস্তাব করেছে কংগ্রেস ওয়ার্কিং কমিটি এবং কোনো ধরনের বিরোধিতা ছাড়াই তা পাস হয়েছে।

পশ্চিমবঙ্গে বাংলা দৈনিক আনন্দবাজার বলছে, সব কিছু ঠিক থাকলে আগামী মাসে কংগ্রেস নতুন সভাপতি হিসাবে রাহুলকে পাবে। দলের সভাপতি পদে রাহুলের অভিষেকের পথ প্রশস্ত করতে সোমবার ওয়ার্কিং কমিটির বৈঠক ডেকেছিলেন সোনিয়া গান্ধী।

গত ১৭ বছর ধরে বিনা প্রতিদ্বন্দ্বিতায় সোনিয়াই দলের সভাপতির দায়িত্ব পালন করছেন। কিন্তু, গুজরাটের বিধানসভার ভোটের আগে রাহুলের রাজনৈতিক ওজন আরও বাড়াতে চায় কংগ্রেস। কংগ্রেসের সূত্রগুলো বলছে, সে লক্ষ্যেই তাকে সভাপতির পদে আনা হবে।

সোমবার কংগ্রেস মুখপাত্র রণদীপ সিংহ সুরজওয়ালা বলেন, ‘দলের পরবর্তী সভাপতি নির্বাচনের প্রক্রিয়া শুরু হয়েছে। রাহুল গান্ধীর নাম প্রস্তাব করেছে ওয়ার্কিং কমিটি। তা পাসও হয়েছে। যদি আর কেউ প্রার্থী হিসাবে মনোনয়ন দাখিল না করেন, তবে তিনিই দলের পরবর্তী সভাপতি হচ্ছেন।’

কংগ্রেস বলছে, সভাপতি পদে নির্বাচনের জন্য আগামী ১ ডিসেম্বর বিজ্ঞপ্তি জারি করা হবে। মনোনয়ন জমা দেয়ার শেষ তারিখ ৪ ডিসেম্বর। ওই দিন বিকাল ৩টা পর্যন্ত মনোনয়নপত্র জমা দেয়া যাবে। পরের দিন অর্থাৎ ৫ ডিসেম্বর সেই মনোনয়নপত্র যাচাই-বাছাই চলবে। মনোনয়নপত্র প্রত্যাহারের শেষ সময় ১১ ডিসেম্বর।

প্রার্থীদের চূড়ান্ত তালিকা প্রকাশ হবে ওই দিন বিকাল ৪টায়। আগামী ১৬ ডিসেম্বর নির্বাচন। গণনা এবং ফলপ্রকাশ ১৯ ডিসেম্বর। যদিও কংগ্রেস সূত্র বলছে, রাহুল ছাড়া এখন পর্যন্ত অন্য কোনো প্রার্থীর কথা তাদের জানা নেই। সম্ভাবনাও নেই বলে তাদের আশা। সে ক্ষেত্রে ৪ ডিসেম্বরই কংগ্রেস সভাপতি হিসাবে রাহুলের নাম ঘোষণা করা হতে পারে।

দৈনিক কালের খবর নিয়মিত পড়ুন এবং বিজ্ঞাপন দিন..

কালের খবর মিডিয়া গ্রুপ লিমিটেডের একটি প্রতিষ্ঠান
Desing & Developed BY ThemesBazar.Com