সোমবার, ২৪ জুন ২০২৪, ১২:৪৯ অপরাহ্ন

সংবাদ শিরোনাম :
জগন্নাথপুরে বাংলাদেশ জামায়াতে ইসলামী’র ফুডপ্যাক বিতরণ। কালের খবর বন্যা দুর্গত মানুষের পাশে জগন্নাথপুর থানা পুলিশ। কালের খবর খ্যাতিমান সাংবাদিক সানাউল্লাহ নূরীর মৃত্যুবার্ষিকী। কালের খবর কুষ্টিয়ায় এশিয়ান টিভির প্রতিনিধির ওপর সন্ত্রাসী হামলা। কালের খবর জগন্নাথপুরে অব্যাহত ভারী বর্ষণ ও ঢলের পানিতে বড় বন্যার শঙ্কা। কালের খবর সম্পত্তি ও জানমালের নিরাপত্তার জন্য প্রধানমন্ত্রীর হস্তক্ষেপ কামনা। কালের খবর জগন্নাথপুর বন্যার প্রভাবে হাটভর্তি গরু, ক্রেতা কম !! কালের খবর রূপগঞ্জে কারখানার বিষাক্ত পানিতে মরে গেলো ৩ লাখ টাকার মাছ : অসুস্থ অর্ধশতাধিক স্থানীয় বাসিন্দা। কালের খবর মুরাদনগরে  দুর্নীতি প্রতিরোধ বিষয়ক  বিতর্ক প্রতিযোগিতা অনুষ্ঠিত। কালের খবর বাঘারপাড়ায় জাতীয় রাজস্ব বোর্ডের অর্থায়নে এক,শত শিক্ষার্থী কে বাইসাইকেল প্রদান। কালের খবর
চলনবিলে হারিয়ে যাচ্ছে ঐতিহ্যবাহী কাঠের ঘানি। কালেন খবর

চলনবিলে হারিয়ে যাচ্ছে ঐতিহ্যবাহী কাঠের ঘানি। কালেন খবর

মোঃ মুন্না হুসাইন তাড়াশ (সিরাজগঞ্জ) প্রতিনিধি, কালের খবর : সিরাজগঞ্জ তাড়াশ উপজেলা সহ চলনবিলের সবগুলো উপজেলাতেই কালের গর্ভে হারিয়ে যেতে বসেছে গ্রাম বাংলার ঐতিহ্যবাহী কাঠের ঘানি। ঘানিতে তেল ভাঙ্গানোর পরিবর্তে মানুষ এখন মেশিন নির্ভর হয়ে পড়ার কারণে জীবিকার তাগিদে অন্য পেশায় চলে যাচ্ছেন ঘানির কারিগরেরা।

এলাকাবাসীরা জানান, একসময় কাঠের ঘানিতে সরিষা, তিল, নারকেল ভাঙিয়ে তেল উৎপাদন করা হতো। গাছের গুঁড়ি দিয়ে তৈরি ঘানির মাঝখানে ছিদ্র থাকে। ওই ছিদ্রে মোটা লাঠি সদৃশ একটি কাঠের যন্ত্রাংশ সংযুক্ত থাকে, যার নাম জ্যাট। জ্যাটের ওপর থাকে কাঠের তৈরি মাকড়ি। মাকড়ি জ্যাটকে ঘুরতে সাহায্য করে। জ্যাট ও মাকড়ির সঙ্গে যুক্ত করা হয় জোয়াল। জোয়ালটি গরু, মহিষ অথবা ঘোড়ার কাঁধে দিয়ে হাঁটালে জ্যাট ঘুরে। জ্যাট, জোয়াল ও মাকড়ির সঙ্গে সংযুক্ত থাকে কাঠের কাতাড়ি। কাতাড়ির ওপর বসে কারিগর তেল উৎপাদন করেন। কারিগর একজন সহকারীকে নিয়ে দিনে ২০ থেকে ২৫ কেজি তিল, সরিষা ও নারকেল মাড়াই করে ১০ থেকে ১২ কেজি তেল উৎপাদন করতে পারেন।
যারা ঘানিতে তেল উৎপাদন করেন তাদের বলা হয় কলু। এখন মানুষ কলুদের দিয়ে তেমন সরিষা, তিল বা নারকেল ভাঙান না। ফলে কলুদের পেশা বিলুপ্তির পথে। সঙ্গে সঙ্গে হারিয়ে যাচ্ছে কাঠের ঘানি। অচিরেই গ্রামবাংলার এ প্রাচীন পেশা দেখতে হয়তো যেতে হবে জাদুঘরে। তবে তাড়াশ উপজেলার কয়েকটি গ্রামের কিছু মানুষ কলুর এতিহ্য এখনও ধরে রেখেছেন। তবে ধীরে ধীওে তারাও জীবন-জীবিকার তাগিদে এ পেশা ছেড়ে অন্য পেশায় চলে যাচ্ছেন উপজেলার কৃষক তোফায়েল হোসেন বলেন, ঘানি শিল্প বাঙালির আদি ঐতিহ্য। ঘানি শিল্পকে হারিয়ে যাওয়া থেকে বাঁচাতে আমাদেরই নজর রাখতে হবে।

দৈনিক কালের খবর নিয়মিত পড়ুন এবং বিজ্ঞাপন দিন..

কালের খবর মিডিয়া গ্রুপ লিমিটেডের একটি প্রতিষ্ঠান
Desing & Developed BY ThemesBazar.Com