বুধবার, ০১ ডিসেম্বর ২০২১, ০৪:৫৭ অপরাহ্ন

সংবাদ শিরোনাম :
প্রধান শিক্ষিকার বিরুদ্ধে দুর্নীতির অভিযোগ, তদন্ত করছে দুদক ও মাউশি। কালের খবর তাড়াশে সেচ্ছাসেবকলীগের সম্মেলন অনুষ্ঠিত। কালের খবর যশোর সদরে ইউপি নির্বাচন ৫ জানুয়ারি। কালের খবর কুমড়া বড়ি তৈরি করতে ব‍্যস্ত তাড়াশের কারিগররা। কালের খবর বাঘারপাড়ায় নির্বাচনী সহিংসতায় চেয়ারম্যান প্রর্থীসহ আহত ২০-অফিস ভাংচুর। কালের খবর যশোর সদর হাসপাতালে দালালদের কাছে জিম্মি রোগীরা। কালের খবর উৎপাদনে নতুন ‘দেশি মুরগি’, ৮ সপ্তাহে হবে এক কেজি। কালের খবর ইউপি নির্বাচনে শাহজাদপুরের ১০ ইউনিয়নে আ.লীগের মনোনয়ন পেলেন যারা। কালের খবর যশোরের শার্শায় শোকজের জবাবের আগেই যুবলীগ নেতা বহিষ্কার! কালের খবর জাতীয় শ্রমিক লীগের উদ্যোগে বীর মুক্তিযোদ্ধা ফজলুল হক মন্টুর প্রথম মৃত্যু বার্ষিকী পালিত। কালের খবর
সাতক্ষীরা চোরাচালানকারবারি মামলায় আলফা ও আলিমের বিরুদ্ধে আদালতে রিমান্ডের আবেদন। কালের খবর

সাতক্ষীরা চোরাচালানকারবারি মামলায় আলফা ও আলিমের বিরুদ্ধে আদালতে রিমান্ডের আবেদন। কালের খবর

জেলা প্রতিনিধি সাতক্ষীরা, কালের খবর : সাতক্ষীরার শীর্ষ চোরাকারবারী আলফা ও আলিমের ৫ দিনের রিমান্ড চেয়ে আদালতের কাছে আবেদন জানানো হয়েছে। সোমবার সাতক্ষীরার সিনিয়র জুডিসিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট ১ম আদালতে আসামিদের জিজ্ঞাসাবাদের জন্য এই রিমান্ডের আবেদন জানান মামলার তদন্ত কর্মকর্তা সদর থানার পরিদর্শক (তদন্ত) আবুল কালাম আজাদ। আদালতের বিচারক রেজওয়ানুজ্জামান আগামী ৯ জানুয়ারি বৃহস্পতিবার রিমান্ড শুনানীর দিন ধার্য্য করেছেন।
আলফা ও আলিম দুই সহোদর দেবহাটা উপজেলার পারুলিয়া ইউনিয়নের কোমরপুর গ্রামের আবুল কাশেম সরদারের ছেলে।
তদন্ত কর্মকর্তা আবুল কালাম আজাদ বিষয়টি নিশ্চিত করে জানান, আলফা ও আলিমকে গত ৩১ ডিসেম্বর গ্রেফতারের পর আদালতের মাধ্যমে সাতক্ষীরা জেলা কারাগারে পাঠানো হয়। এই দুই চোরাকারবারীসহ কয়েকজনের বিরুদ্ধে গত ৩০ ডিসেম্বর বিজিবি’র হাবিলদার মো. মোহসীন আলী বাদী হয়ে সাতক্ষীরা সদর থানায় একটি মামলা দায়ের করেন। মামলা নং-৫৮। ধারা ১৯৭৪ সালের বিশেষ ক্ষমতা আইনের (স্পেশাল পাওয়ার এ্যাক্ট’র) ২৫ বি (১) (বি)/২৫ডি। এ মামলায় তাদের জিজ্ঞাসাবাদের জন্য সোমবার আদালতের কাছে ৫ দিনের রিমান্ড আবেদন জানালে আদালত তা শুনানির জন্য আগামী ৯ জানুয়ারী দিন ধার্য্য করেছেন।
উল্লেখ্য, শীর্ষ চোরাকারবারী আলফেরদৌস আলফা মাদক মামলায় ইতিপূর্বে সাত বছরের সাজাপ্রাপ্ত হয়ে কয়েক মাস জেলও খেটেছেন। পরবর্তীতে উচ্চ আদালতের জামিনে বেরিয়ে আসেন। তিনি সরকারের তালিকাভুক্ত হুন্ডি ব্যবসায়ী, চোরাকারবারী, মাদক ও অবৈধ অস্ত্র ব্যবসায়ী বলেও বিভিন্ন পত্র-পত্রিকায় প্রকাশিত খবরের ভিত্তিতে জানা যায়। এছাড়া, আলফার সহোদর আব্দুল আলিম বিজিবি হত্যা মামলার চার্জশিটভুক্ত আসামী বলে সদর থানায় দায়েরকৃত ৩৮ নং মামলা সূত্রে জানা গেছে। এই মামলাটি ২০১৩ সালের নভেম্বর মাসে দায়ের করেন ভোমরা বিজিবি’র নায়েক মোঃ নাসির উদ্দীন। মামলাটি আদালতে এখনও বিচারাধীন রয়েছে। ( ছবি আছে)

দৈনিক কালের খবর নিয়মিত পড়ুন এবং বিজ্ঞাপন দিন..

কালের খবর মিডিয়া গ্রুপ লিমিটেডের একটি প্রতিষ্ঠান
Desing & Developed BY ThemesBazar.Com