শুক্রবার, ১৪ জুন ২০২৪, ১০:৪৩ পূর্বাহ্ন

সংবাদ শিরোনাম :
জগন্নাথপুর বন্যার প্রভাবে হাটভর্তি গরু, ক্রেতা কম !! কালের খবর রূপগঞ্জে কারখানার বিষাক্ত পানিতে মরে গেলো ৩ লাখ টাকার মাছ : অসুস্থ অর্ধশতাধিক স্থানীয় বাসিন্দা। কালের খবর মুরাদনগরে  দুর্নীতি প্রতিরোধ বিষয়ক  বিতর্ক প্রতিযোগিতা অনুষ্ঠিত। কালের খবর বাঘারপাড়ায় জাতীয় রাজস্ব বোর্ডের অর্থায়নে এক,শত শিক্ষার্থী কে বাইসাইকেল প্রদান। কালের খবর পৈত্রিক সম্পত্তি ভূমিদস্যু হাতে থেকে রক্ষার দাবিতে সংবাদ সম্মেলন জগন্নাথপুরে রেমিটেন্স যোদ্ধার মৃত্যু এলাকায় শোকের ছায়া, জানাযা সম্পন্ন। কালের খবর সাইবার অপরাধ দমন ও অপপ্রচার ঠেকাতে একটি আলাদা ‘সাইবার পুলিশ ইউনিট’ হবে : সংসদে প্রধানমন্ত্রী রাইস ট্রান্সপ্লান্টারের মাধ্যমে ধানের চারা রোপণ কর্মসূচি উদ্বোধন। কালের খবর ইউপি চেয়ারম্যান পিতার এক ছেলে এমপি আরেক ছেলে উপজেলা চেয়ারম্যান। কালের খবর ঢাকা প্রেস ক্লাবের স্থায়ী সদস্য এম নজরুল ইসলামের মৃত্যুতে গভীর শোক। কালের খবর
তাড়াইলে ধর্ষণ গ্রেফতার ৩। কালের খবর

তাড়াইলে ধর্ষণ গ্রেফতার ৩। কালের খবর

তাড়াইল, কিশোরগন্জ থেকে ওয়াসিম সোহাগ কালের খবর : কিশোরগঞ্জের তাড়াইল উপজেলায় এক গৃহবধূ ধর্ষণের শিকার হয়েছেন। ধর্ষণ কারীদেরকে গ্রেফতার করেছে তাড়াইল থানার পুলিশ।
তাড়াইল থানা সূত্রে জানা গেছে, গতকাল মঙ্গলবার সন্ধ্যা ৭ টার দিকে উপজেলার দামিহা ইউনিয়নের কাজলা গ্রামের সঞ্জু মিয়ার স্ত্রী (৩০) স্বামীর বাড়ি থেকে অসুস্থ বাবাকে দেখতে যাচ্ছিলেন তার বাপের বাড়ি পার্শ্ববর্তী দিগদাইড় ইউনিয়নের জটারকান্দা গ্রামে। পথিমধ্যে বৌওশা বাজার নামক স্থান থেকে ধর্ষকরা কল্লা গ্রামের মৃত সিদ্দিক মিয়ার পুত্র হাবিব মিয়া উরুফে হাবিব (৩০), ভাদেড়া গ্রামের মৃত কালীমহন চন্দ্র বর্মনের পুত্র বাবুল চন্দ্র বর্মন (৩২), হাত কাজলা গ্রামের মতি মেম্বার (সাবেক)এর পুত্র মো.রনি (২৮) ওই গৃহবধুকে অপহরণ করে পার্শ্ববর্তী করিমগঞ্জ উপজেলার নিয়ামতপুর ইউনিয়নের দিগারকল্লা গ্রামের ফুল হরিয়া বিলের আঞ্জুমুন্সীর ফিসারীর পাড়ে নিয়ে পালাক্রমে ধর্ষণ করে। পরে একই স্থানে ওই গৃহবধূকে ফেলে রেখে হুমকি ধমকি দিয়ে পালিয়ে যায়।
ওই স্থান থেকে গৃহবধু বাপের বাড়ি জটারকান্দা যাওয়ার পথে নিজ বড় ভাইয়ের সাথে দেখা হলে ঘটনার সব কিছু খুলে বলেন। ধর্ষিতার বড় ভাই বৌশের বাজারের লোকজনের সহযোগিতায় ধর্ষকদের আটক করে তাড়াইল থানায় খবর দেয়।
খবর পেয়ে তাড়াইল থানার অফিসার ইনচার্জ মো. মুজিবুর রহমান সঙ্গীয় ফোর্স নিয়ে মঙ্গলবার দিবাগত রাত ১২ টা ৩০ মিনিটের দিকে ধর্ষকদের গ্রেফতার করে থানায় নিয়ে আসে।
ধর্ষিতার বড় ভাই সুজন মিয়া আজ বুধবার সকালে বাদী হয়ে ধর্ষকদের বিরুদ্ধে ৭/৯-৩/৩০ ধারায় তাড়াইল থানায় একটি মামলা দায়ের করেন। মামলা নং ০১।
এব্যাপারে খোঁজ নিলে তাড়াইল থানার অফিসার্স ইনচার্জ মো.মুজিবুর রহমান ঘটনার সত্যতা স্বীকার করেন। তিনি বলেন, মামলা দায়েরের পর আজ বুধবার দুপুরে ধর্ষণকারীদেরকে কিশোরগঞ্জ কোর্ট হাজতে প্রেরণ করা হয়েছে। এবং আইনি প্রক্রিয়ায় ধর্ষিতার মেডিকেল চেকআপ করার জন্য কিশোরগঞ্জ আধুনিক সদর হাসপাতালে প্রেরণ করা হয়েছে।

দৈনিক কালের খবর নিয়মিত পড়ুন এবং বিজ্ঞাপন দিন..

কালের খবর মিডিয়া গ্রুপ লিমিটেডের একটি প্রতিষ্ঠান
Desing & Developed BY ThemesBazar.Com