শুক্রবার, ১৪ জানুয়ারী ২০২২, ০৪:৩৯ অপরাহ্ন

সংবাদ শিরোনাম :
নাসিকে জমে উঠেছে নির্বাচনী উৎসব। কালের খবর হাবিবুর রহমান স্বপনের মাতৃবিয়োগ। কালের খবর মাদক,সন্ত্রাস ও ইভটিজিং নির্মূলে খেলাধূলার ভূমিকা অপরিসীম। কালের খবর নবীনগরে আইনশৃঙ্খলার ব্যাপক অবনতি, অগ্নিসংযোগ আতঙ্কে সাধারণ মানুষ। কালের খবর নবীনগরে জাতীয় পার্টির ৩৬ তম প্রতিষ্ঠা বার্ষিকী পালিত। কালের খবর সারা বছরজুড়ে যশোরের যত আলোচিত ঘটনা। কালের খবর হান্ডিয়াল প্রেসক্লাবে দ্বিবার্ষিক কমিটি গঠন। কালের খবর নবীনগরে শপথ গ্রহণের পূর্বেই ইউ/পি সদস্য খুরশেদ আলম জুতাপেটা করলেন এক বৃদ্ধাকে। কালের খবর ডিঙ্গামানিক ইউনিয়ন জুড়েই যেন চশমা প্রতিকে ভোট প্রার্থনা। কালের খবর মেহেরপুরে জোসনা বেকারিকে ভ্রাম্যমান আদালতের জরিমানা। কালের খবর
সাংবাদিককে ‘নির্যাতন’ করে হাতে ইয়াবা ট্যাবলেট দিয়ে মামলায় ফাঁসানোর অভিযোগ পুলিশের বিরুদ্ধে। কালের খবর

সাংবাদিককে ‘নির্যাতন’ করে হাতে ইয়াবা ট্যাবলেট দিয়ে মামলায় ফাঁসানোর অভিযোগ পুলিশের বিরুদ্ধে। কালের খবর

কালের খবর প্রতিবেদক :

হবিগঞ্জ জেলা সদরে একটি বেসরকারি টেলিভিশনের সাংবাদিককে ‘নির্যাতন’ করে হাতে ইয়াবা ট্যাবলেট দিয়ে মামলায় ফাঁসানোর অভিযোগ উঠেছে পুলিশের বিরুদ্ধে।

তবে পুলিশ ‘নির্যাতন’ ও ‘ফাঁসানোর’ অভিযোগ অস্বীকার করেছে।
শুক্রবার হবিগঞ্জের সাংবাদিকরা এ ঘটনার প্রতিবাদে বিক্ষোভ করে দোষীদের শাস্তি দাবি করেছেন।
বৃহস্পতিবার গভীর রাতে জেলা শহরের গরুর বাজারে সাংবাদিক সিরাজুল ইসলাম জীবনের ব্যবসায়িক প্রতিষ্ঠান থেকে তাকে এবং তার ভাই আজিজুল ইসলামকে পুলিশ ধরে নিয়ে যায়।

সিরাজুল ইসলাম জীবন যুক্তরাজ্য ভিত্তিক টেলিভিশন ‘চ্যানেল এস’ এর হবিগঞ্জ জেলা প্রতিনিধি।

জীবনের বোন পারভীন আক্তার সাংবাদিকদের বলেন, বৃহস্পতিবার দিবাগত রাত ২টার দিকে শহরের গরুর বাজারে তাদের ব্যবসায়িক প্রতিষ্ঠানে গিয়ে দরজায় ধাক্কা দেয় পুলিশ। তখন ভেতরে থাকা জীবনের ছোট ভাই আজিজুল ইসলাম দোকানের শাটার খুলে দিলে পুলিশ ভেতরে ঢুকেই তাদের হাতে থাকা একটি প্যাকেট দেখিয়ে তাকে মাদকসেবী বলে আটক করে।

পারভীন বলেন, এ ঘটনার খবর পেয়ে পাশের বাসা থেকে জীবনসহ পরিবারের অন্যান্যরা ছুটে এসে বিষয়টি চ্যালেঞ্জ করলে দুপক্ষের মধ্যে বাকবিতণ্ডা হয়। এক পর্যায়ে পুলিশ জীবন ও আজিজুলকে লাঠিপেটা করে। এ সময় তাদের চিৎকার শুনে আশপাশের লোকজন ছুটে এলে অতিরিক্ত পুলিশ এসে দুই ভাইকে হবিগঞ্জ মডেল থানায় নিয়ে যায়। সেখানে নিয়ে এসআই রকিবুলের নেতৃত্বে তাদেরকে বেধড়ক মারপিট করা হয়।

আদালত প্রাঙ্গণে জীবন সাংবাদিকদের বলেন, তাদের চোখ বেঁধে একনাগাড়ে মারধর করা হয়েছে। এক পর্যায়ে পায়খানার রাস্তায় মোমবাতি দিয়ে ছ্যাঁকা দিয়েছে পুলিশ। পরে তাকে সদর আধুনিক হাসপাতালে প্রাথমিক চিকিৎসা দেওয়া হয়।

‘হাসপাতালে আঘাতের কারণ লেখা হয় গণপিটুনি,’ বলেন জীবন।
এ ব্যাপারে মডেল থানার এসআই রকিবুল ইসলাম বলেন, মাদক বিরোধী অভিযানের অংশ হিসেবে তারা ওই দোকানে অভিযান চালিয়েছিলেন। সেখান থেকে ১০টি ইয়াবা ট্যাবলেটসহ আজিজুলকে গ্রেপ্তার করা হলে জীবন তাতে বাধা দেন।

তাদেরকে নির্যাতনের অভিযোগ অস্বীকার করেন এসআই রকিবুল ইসলাম।

এদিকে, এ ঘটনায় বেলা আড়াইটার দিকে হবিগঞ্জ প্রেসক্লাবে জরুরি বৈঠকে বসেন জেলার সাংবাদিকরা।

বৈঠকে তারা জীবন ও তার ভাইকে ইয়াবা উদ্ধারের নামে মিথ্যা মামলায় জড়ানোর অভিযোগ করে। এ ঘটনার প্রতিবাদ জানিয়ে তারা দোষী পুলিশ সদস্যদের শাস্তি দাবি করেন।

পরে বিকালে সাংবাদিকরা সদর মডেল থানার সামনের সড়ক অবরোধ করে বিক্ষোভ করেন।
হবিগঞ্জ প্রেস ক্লাবের সাবেক সভাপতি গোলাম মোস্তফা রফিক, সাবেক সভাপতি রুহুল হাসান শরীফ, সাবেক সভাপতি ফজলুর রহমান, সাবেক সভাপতি হারুনর রশীদ চৌধুরী, বর্তমান সাধারণ সম্পাদক রাসেল চৌধুরী, সাংবাদিক শাকিল চৌধুরী প্রমুখ বক্তব্য রাখেন।
প্রসঙ্গত, সারা দেশে চলমান মাদকবিরোধী অভিযানে ১৩ দিনে ১২২ জন নিহত হয়েছেন।

      দৈনিক কালের খবর নিয়মিত পড়ুন । 

দৈনিক কালের খবর নিয়মিত পড়ুন এবং বিজ্ঞাপন দিন..

কালের খবর মিডিয়া গ্রুপ লিমিটেডের একটি প্রতিষ্ঠান
Desing & Developed BY ThemesBazar.Com