বুধবার, ২৯ মে ২০২৪, ০৮:০৫ পূর্বাহ্ন

সংবাদ শিরোনাম :
ইপিজেড থানা পুলিশের অভিযানে অসামাজিক কাজে লিপ্ত থাকায় নারী ও পুরুষ মিলে (১২) জন গ্রেফতার। কালের খবর মুরাদনগরে আনারসে ভোট চেয়ে গণসংযোগ করলেন ব্যারিস্টার অনন। কালের খবর যশোরের কেশবপুরে শান্তি স্থাপন ও সহিংসতা নিরসনে (পিএফজি, র) সভা অনুষ্ঠিত। কালের খবর রায়পুরার ছাত্রলীগ নেতা মামুনকে জড়িয়ে মিথ্যা ও হয়রানি মূলক ধর্ষণ মামলাসহ একাধিক মামলা করায় সর্বমহলে নিন্দা। কালের খবর মাদকদ্রব্য নিয়ন্ত্রণ আইন-২০১৮ এর ৫৬ ধারার প্রয়োগ’ শীর্ষক সেমিনারে.প্রধান অতিথি সিএমপি কমিশনার। কালের খবর সহিংসতা নয়-শান্তির জন্য আমরা-এই শ্লোগান কে সামনে রেখে বাঘারপাড়ায় অনুষ্ঠিত হলো (পিএফজির) সম্মিলিত কার্যক্রম ও পরিকল্পনা প্রণয়ন সভা। কালের খবর ঢাকা জেলা রেজিস্ট্রার অহিদুল ইসলাম সাময়িক বরখাস্ত। কালের খবর বাঘারপাড়া প্রেস ক্লাবের সাবেক সভাপতি সাংবাদিক লক্ষণ চন্দ্র মন্ডলের মৃত্যুতে বিভিন্ন মহলের শোক। কালের খবর যুবদের নেতৃত্বে সঠিক কর্মপরিকল্পনা গ্রহনের ফলে , সমাজে সহিংসতা নিরসন ও শান্তি স্থাপন হতে পারে। কালের খবর কোরবানির পশু প্রস্তুত করতে ব্যস্ত সাতক্ষীরার খামারিরা। কালের খবর
চিকিৎসার নামে স্পর্শকাতর স্থানে গরম লোহার ছ্যাঁকা

চিকিৎসার নামে স্পর্শকাতর স্থানে গরম লোহার ছ্যাঁকা

কালের খবর প্রতিনিধি: কবিরাজের বিরুদ্ধে চিকিৎসার নামে এক গৃহবধূকে নির্মম নির্যাতনের অভিযোগ উঠেছে। ওই গৃহবধূর জিহ্বা, মুখ ও স্পর্শকাতর স্থানসহ শরীরের বিভিন্ন স্থানে গরম লোহার ছ্যাঁকা দিয়ে পোড়ানো হয়েছে বলে অভিযোগ স্বজনদের। এ ঘটনায় অভিযুক্ত কবিরাজকে গ্রেফতার করেছে পুলিশ।

বুধবার দুপুরে মুমূর্ষু অবস্থায় গৃহবধূ জয়নবকে রংপুর মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের বার্ন ইউনিটে ভর্তি করা হয়। বিকেলে সার্জারি ওয়ার্ডে নেয়া হলেও সন্ধ্যায় স্থানান্তর করা হয় ওয়ানস্টপ ক্রাইসিস সেন্টার ওসিসিতে। সেখানে চিকিৎসার নামে কবিরাজের নির্মম নির্যাতনের বর্ণনা দেন জয়নব।

নির্যাতিতা জয়নব বলেন, ‘আগুন জ্বালিয়ে মাল্টা আগুনে দিল। এরপর আমার হাত-পা বেঁধে সেই গরম মাল্টা আমার জিহবায় ঢুকিয়ে দিল।’

স্বামী ঝালমুড়ি বিক্রেতা নূর মোহাম্মদ জানান, সম্প্রতি স্ত্রী জয়নব অস্বাভাবিক আচরণ করায় তার ভাড়া বাড়ির মালিকের মাধ্যমে কবিরাজের দ্বারস্থ হন। সাত দিন ধরে চিকিৎসা করেন কবিরাজ।

নির্যাতিতার স্বামী নূর মোহাম্মদ বলেন, ‘বিশ হাজার টাকা দাবি করেছিল উনি। বাড়িওয়ালা বলেছি তিন হাজার টাকা দেব। তিন হাজার টাকা দেয়ার পরে তারা এই কাজ করে।’

অভিযুক্ত কবিরাজ মুনশি কবিরাজ বলেন, ‘এটা করলে ভূত-টুত থাকলে চলে যায়। ভূত থাকে না। এই শিক্ষাটা এক হিন্দু মুরব্বি মারা যাওয়ার আগে আমাকে শিখিয়ে দিয়েছিল।’

ঘটনা জেনে পুলিশ কবিরাজের বাড়িতে অভিযান চালিয়ে তাকে আটক করে।

রংপুর কোতয়ালি থানা ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা বাবুল মিয়া বলেন, ‘ইতিমধ্যে তাকে আটক করা হয়েছে। সে দোষী হলে তাকে উপযুক্ত শাস্তি দেয়া হবে।’

নূর মোহাম্মদের ভাড়া বাড়ির মালিক মাইদুল পাশের গ্রামের মুনশি কবিরাজের কাছে চিকিৎসা করাতে কুড়ি হাজার টাকায় চুক্তি করিয়ে দিয়েছিলেন। কিন্তু জয়নবের করুণ পরিণতির পর ওই দিনই তাদের বাড়ি থেকে তাড়িয়ে দেন।

কালের খবর -/৮/৩/১৮

দৈনিক কালের খবর নিয়মিত পড়ুন এবং বিজ্ঞাপন দিন..

কালের খবর মিডিয়া গ্রুপ লিমিটেডের একটি প্রতিষ্ঠান
Desing & Developed BY ThemesBazar.Com