বৃহস্পতিবার, ০৮ ডিসেম্বর ২০২২, ০৪:০০ পূর্বাহ্ন

সংবাদ শিরোনাম :
বাঘারপাড়ায় আমন ধানের চিটা বেশি – ভোলায় ভূমিহীন নেত্রী বকুল হত্যা এবং পুলিশ কর্তৃক মামলা গ্রহন না করার প্রতিবাদে নাগরিক সমাজের সংবাদ সম্মেলন। কালের খবর কুষ্টিয়ায় অবৈধ ভেজাল গুড় তৈরি কারখানায় অভিযানে জেল-জরিমানা। কালের খবর যশোরের মাটিতেই প্রথম উড়েছিল স্বাধীন বাংলাদেশের পতাকা। কালের খবর শাহজাদপুরে মহান বিজয় দিবস উদযাপন উপলক্ষে প্রস্তুতিমুলক সভা। কালের খবর আগামীকাল ছাত্রলীগের সম্মেলন: অনূর্ধ্ব ২৯ বছরেই বন্ধি ছাত্রলীগ বিতর্কমুক্ত ছাত্রলীগের কমিটি উপহার চলন বিলে পানি যাওয়ার সাথে সাথে আমন কেটেই জমিতে সরিষা বুনছেন কৃষক। কালের খবর নজু মুন্সির বাড়ীতে বেআইনিভাবে হাতে আগ্নেয়াস্ত্রসহ বসতঘরে অনধিকার প্রবেশ করে অতর্কিত হামলা চালায় সন্ত্রাসীরা। কালের খবর স্বাধীনতা বিরোধী শক্তির অপতৎপরতা প্রতিরোধে এবার মাঠে নামছে আওয়ামী মুক্তিযুদ্ধ প্রজন্ম লীগ। কালের খবর সখীপুরে হায়দার মাস্টার স্মৃতি ফুটবল টুর্নান্টের ফাইনাল খেলা অনুষ্ঠিত। কালের খবর
কোন মন্ত্রী কত টাকার দুর্নীতি করেছে তার হিসাব হবে : মওদুদ

কোন মন্ত্রী কত টাকার দুর্নীতি করেছে তার হিসাব হবে : মওদুদ

কালের খবর প্রতিবেদক : আওয়ামী লীগের জেলা থেকে শুরু করে মন্ত্রী, এমপিসহ সব পর্যায়ের কোন মন্ত্রী কত টাকার দুর্নীতি করেছে তার উপর গত ১০ বছরের শ্বেতপত্র প্রকাশ করা হবে বলে জানিয়েছেন বিএনপির স্থায়ী কমিটির সদস্য ব্যারিস্টার মওদুদ আহমদ।

শুক্রবার সকালে জাতীয় প্রেসক্লাবে ২০ দলীয় জোট নেত্রী বিএনপির চেয়ারপারসন খালেদা জিয়ার মুক্তি ও নিরপেক্ষ সরকারের অধীনে নির্বাচনের দাবিতে ন্যাশনাল পিপলস পার্টি (এনপিপি) আয়োজিত আলোচনা সভায় মওদুদ এসব কথা বলেন।।

বিএনপির স্থায়ী কমিটির এই সদস্য বলেন, ‘বর্তমান সরকার শেষ সরকার নয়। এ সরকারে আমলে মন্ত্রী, এমপি, ব্যবসায়ী, তাদের মদদপুষ্ট, এমনকি জেলা পর্যায়ের নেতারা কত টাকা দুর্নীতি করেছেন, তার হিসাব হবে। সবার দুর্নীতির শ্বেতপত্রও প্রকাশ করে তাদের বিচারের মুখোমুখি করা হবে। সবকিছুর জবাব দিতে হবে।’ ‘বাংলাদেশ ব্যাংকে এত বড় চুরি হয়ে গেল, কিন্তু কখনো কাউকে গ্রেপ্তার বা বিচারের মুখোমুখি করা হয়নি। কারো ঘরে চুরি হলেও তো বাড়ির দারোয়ানকে পুলিশ আটক করে। আর বিএনপির হাজার হাজার নেতাকর্মীকে সন্দেহভাজন হিসেবে গ্রেপ্তার করে কারাগারে ভরে। কিন্তু কেন্দ্রীয় ব্যাংকের রিজার্ভ চুরি গেল অথচ কারা জড়িত, সেটা কেউ জানল না।’

বিএনপি নেতা বলেন, সরকার আজ উন্নয়নের কৃতিত্ব দাবি করে। কিন্তু দেশে যে উন্নয়ন হয়েছে, তার কৃতিত্ব সরকারের নয়, দেশের মানুষের। দেশের অর্থনীতি মূলত যে তিনটি সেক্টরের ওপর বেশি নির্ভর করে, সেগুলো হলো কৃষি, বিদেশি রেমিট্যান্স ও পোশাক শিল্প। এ তিনটি খাত প্রতিষ্ঠা ও সম্প্রসারণ করেছে বিএনপি। এগুলোতে সরকারের কোনো অবদান নেই।

খালেদা জিয়ার মুক্তির বিষয়ে সাবেক এ মন্ত্রী আরো বলেন, যত ষড়যন্ত্র করেন না কেন, খালেদা জিয়া মুক্তি পাবেন। তাঁকে আটকে রাখা যাবে না। আর যেদিন তিনি মুক্তি পাবেন, সেদিন দেখবেন তাঁর জনপ্রিয়তা জেলে যাওয়ার আগের চেয়ে তিন গুণ বেশি বেড়ে গেছে। দেশের মানুষ তাঁর সঙ্গে রাস্তায় নেমে আসবে।

নির্বাচন কমিশন নিয়ে মওদুদ আহমদ বলেন, ‘আমরা সরকারি দলের প্রচার বিষয়ে ইসিকে চিঠি দিয়েছি। কিন্তু পত্রিকায় দেখলাম, তাঁরা জবাব দিয়েছেন তফসিল ঘোষণার পর তাঁরা দায়িত্ব গ্রহণ করেন। কিন্তু আমাদের দেশে তফসিল ঘোষণা হয় দেড় মাসে আগে। কিন্তু এ অল্প সময়ে কি প্রশাসনকে ঢেলে সাজানো যায়?’এই সরকারের আমলে আমি দুবার জেলে গেছি। অনেকে বলে মওদুদ সাহেব জেলে যেতে চান না। আমি এ পর্যন্ত ৮ বার জেলে গেছি। সুতরাং জেলে যাওয়ার ভয় আমার নেই।

এনপিপি’র সভাপতি ড. ফরিদুজ্জামান ফরহাদের সভাপতিত্বে আরও উপস্থিত ছিলেন এনপিপির মহাসচিব মুস্তাফিজুর রহমান মোস্তফা, যুগ্ম মহাসচিব মো. ফরিদ উদ্দিন, জাতীয় পার্টির (কাজী জাফর) মহাসচিব মোস্তফা জামাল হায়দার, বিএনপির নির্বাহী কমিটির সদস্য আবু নাসের রহমতুল্লাহ প্রমুখ।

দৈনিক কালের খবর নিয়মিত পড়ুন এবং বিজ্ঞাপন দিন..

কালের খবর মিডিয়া গ্রুপ লিমিটেডের একটি প্রতিষ্ঠান
Desing & Developed BY ThemesBazar.Com