বৃহস্পতিবার, ০৮ এপ্রিল ২০২১, ০৬:০৪ পূর্বাহ্ন

সংবাদ শিরোনাম :
শ্রীপুরে লিচুর মধু সংগ্রহসহ লিচুর উৎপাদনও বাড়ছে। কালের খবর মুন্সীগঞ্জ নৌ পুলিশের অভিযানে কারেন্ট জাল জব্দ। কালের খবর সখীপুরে অপহরণের ৬ দিন পর আড়াই মাসের সেই শিশু উদ্ধার, আটক ৩। কালের খবর রাজধানীতে খাবার ও সুরক্ষা সামগ্রী বিতরণ করেছে আওয়ামী লীগ। কালের খবর কালীগঞ্জে মায়ের মৃত্যুর এক সপ্তাহ পর করোনায় আক্রান্ত মেয়ের মৃত্যু। কালের খবর গরম ঝড়ো বাতাসে কৃষকের সর্বনাশ। কালের খবর স্বাস্থ্যবিধি না মেনে বিদ্যালয়ের গেট বন্ধ রেখে গোপনে চলে পাঠদান। কালের খবর ইউএস-বাংলাদেশ বিজনেস কাউন্সিলের উদ্বোধন করেন প্রধানমন্ত্রী। কালের খবর মুন্সীগঞ্জ শিমুলিয়া ঘাটে ফেরি চালুর দাবিতে দুই দফা যাত্রীদের বিক্ষোভ। কালের খবর সখীপুরে সড়ক দুর্ঘটনায় কলেজছাত্র নিহত। কালের খবর
স্বাস্থ্যবিধি না মেনে বিদ্যালয়ের গেট বন্ধ রেখে গোপনে চলে পাঠদান। কালের খবর

স্বাস্থ্যবিধি না মেনে বিদ্যালয়ের গেট বন্ধ রেখে গোপনে চলে পাঠদান। কালের খবর

সিরাজগঞ্জ প্রতিনিধি, কালের খবর :

সরকারের নির্দেশনা উপেক্ষা করে সিরাজগঞ্জের কাজিপুর উপজেলার পরানপুর এলাকায় ‘অন্যরকম বিদ্যানিকেতন’ নামে একটি বেসরকারি শিক্ষা প্রতিষ্ঠান স্বাস্থ্যবিধি না মেনে পাঠদান কার্যক্রম পরিচালনা করে যাচ্ছে বলে অভিযোগ পাওয়া গেছে। এতে শিক্ষার্থীদের মধ্যে করোনা ঝুঁকি দেখা দেয়ার সম্ভাবনা রয়েছে। তবে মঙ্গলবার (৬ এপ্রিল) সকালে সাংবাদিকরা ওই প্রতিষ্ঠানে গেলে পাঠদান বন্ধ করে শিক্ষার্থীদেরকেও দ্রুত ছুটি দেওয়া হয়।

সরেজমিনে দেখা যায়, বিদ্যালয়টির মেইন গেট বন্ধ।শুধু ছোট পকেট গেটটি খোলা রয়েছে। ভেতরে ক্লাস চলছে। কিন্তু বাইরে থেকে ক্লাস করার দৃশ্য বোঝার উপায় নেই। সাংবাদিকের উপস্থিতি টের পেরে বিদ্যালয়ের পাঠদান বন্ধ করে দেয় কর্তৃপক্ষ।

এর কিছুক্ষণ পরেই সাইকেলের পেছনে বই নিয়ে শিক্ষার্থীদের বাড়ি ফিরতে দেখা যায়। তাদের অনেকের মুখেই মাস্ক ছিল না। সাংবাদিক দেখে অনেক শিক্ষার্থীদের অনেকেই দৌড়ে পালিয়ে যায়। কয়েকজন শিক্ষার্থীকে থামিয়ে জিজ্ঞাসাবাদ করা হলে তারা জানান, প্রতিদিন ভোর থেকেই ক্লাস হয়।

অন্য রকম বিদ্যানিকেতনের পরিচালকের স্ত্রী আফরিন বেগম জানান, বিদ্যালয় বন্ধ করে দেয়া হয়েছে। শিক্ষার্থীরা ফরম পূরণের জন্য বিদ্যালয়ে এসেছিল। তবে পঞ্চম শ্রেণির শিক্ষার্থীরা কোন পরীক্ষার ফরম পূরণ করতে আসে জানতে চাইলে তিনি কৌশলে এড়িয়ে যান।বিদ্যালয়টির পরিচালক ইয়াছিন আলী বলেন, স্কুলে কোনো ক্লাস চলে না। তবে জেএসসি ফরম পূরণের জন্য ছাত্ররা এসেছিল।

কাজিপুর উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা জাহিদ হাসান সিদ্দিকী জানান, বিষয়টি আজকেই জানতে পেরেছি। বিদ্যালয় কর্তৃপক্ষের সঙ্গে কথা হয়েছে। বিদ্যালয় কর্তৃপক্ষ বলেছেন, ফরম পূরণের জন্য শিক্ষার্থীরা এসেছিল। তবে বিষয়টি খতিয়ে দেখা হচ্ছে। ওই স্কুলের ওপর আমাদের নজরদারি থাকবে।

দৈনিক কালের খবর নিয়মিত পড়ুন এবং বিজ্ঞাপন দিন..

কালের খবর মিডিয়া গ্রুপ লিমিটেডের একটি প্রতিষ্ঠান
Desing & Developed BY ThemesBazar.Com