রবিবার, ০৫ ফেব্রুয়ারী ২০২৩, ০২:২২ অপরাহ্ন

সংবাদ শিরোনাম :
বোয়ালমারীতে ফসলি জমির মাটি কেটে ইটভাটায় বিক্রির হিড়িক! কালের খবর রাজস্ব আহরনে সবাই সততা ও নিষ্ঠার সঙ্গে কাজ করবে বলে আমি বিশ্বাস করি : প্রধানমন্ত্রী। কালের খবর খেলাধুলার মাধ্যমে আন্তর্জাতিক ভাবে পরিচিতি লাভ করা যায় – স্মৃতি। কালের খবর মুরাদনগরে চলছে ফসলি জমির মাটি কাটার মহা-উৎসব। কালের খবর তুচ্ছ ঘটনাকে কেন্দ্র করে সুদের কারবারির হাতে ওষুধ ব্যবসায়ী খুন! কালের খবর প্রেসক্লাব বাসুন্দিয়ার (৫ম) প্রতিষ্ঠা বার্ষিকী উপলক্ষে ফ্রি মেডিকেল ক্যাম্প অনুষ্ঠিত। কালের খবর সাংবাদিক শিমুল হত্যার ৬ বছর : শুরু হয়নি বিচারকার্য। কালের খবর রবীন্দ্র বিশ্ববিদ্যালয়ে আনন্দমুখর পরিবেশে প্রথম বর্ষের ক্লাস শুরু। কালের খবর শাহজালালে সাড়ে ১৩ কোটি টাকার স্বর্ণসহ এয়ারলাইন্সের চালক আটক। কালের খবর নবীনগরে পল্লী বিদ্যুৎ সমিতির ডি জি এম এর অপসারণের দাবিতে সাংবাদিক সমাজের মানববন্ধন। কালের খবর
সাতক্ষীরায় গৃহবধূকে গাছে বেঁধে প্রকাশ্যে নির্যাতন। কালের খবর

সাতক্ষীরায় গৃহবধূকে গাছে বেঁধে প্রকাশ্যে নির্যাতন। কালের খবর

সাতক্ষীরা প্রতিনিধি, কালের খবর : সাতক্ষীরায় এক নারীকে আমগাছের সঙ্গে বেঁধে প্রকাশ্যেনির্যাতন করার অভিযোগ পাওয়া গেছে।

শনিবার বিকালে সদর উপজেলার ভাড়–খালি গ্রামে এ ঘটনা ঘটে। পুলিশ এ ঘটনায় চারজনকে আটক করেছে।

নির্যাতিত ওই নারী (৫০) জাহাবক্স সরদারের স্ত্রী এবং একই এলাকার ওয়াজেদ সরদারের মেয়ে।

গ্রামবাসী জানান, কিছু দিন ধরে ওই নারী সম্পর্কে অশালীন কথাবার্তা বলে আসছিলেন গ্রামের কয়েকজন লোক। এ নিয়ে পাল্টা মুখ বলাবলি এমনকি পরে শত্রু তারও সৃষ্টি হয়। এই শত্রু তার জেরে শনিবার বাড়িতে লোকজন না থাকার সুযোগে সালেহাকে একটি আমগাছের সঙ্গে বেঁধে অশোভন ভাষায় গালাগাল করতে থাকেন আবদুর রহমান ও তার ভাই মুজিবর রহমান।

এ খবর সঙ্গে সঙ্গে জানাজানি হয়। এমনকি সামাজিক যোগাযোগমাধ্যম ফেসবুকেও ছড়িয়ে পড়ে। খবর পেয়ে সাতক্ষীরা সদর থানা পুলিশ নির্যাতিত গৃহবধূকে উদ্ধার করে। এ সময় গ্রেফতার করা হয় আবদার রহমান, তার স্ত্রী, ছেলে ফিরোজ রহমান ও ভাই মুজিবর রহমানকে।

সালেহার স্বামী জাহাবক্স বলেন, স্ত্রীকে রহমান ও কয়েকজন কুপ্রস্তাব দিতে থাকেন। বিষয়টি বাড়িতে জানালে এর প্রতিবাদও করি আমরা। কিন্তু বাড়িতে না থাকার সুযোগে তারা স্ত্রীকে গাছে বেঁধে বিবস্ত্র করে নির্যাতন করেছে। তিনি এর ন্যায্য বিচার দাবি করেন।

সদর থানার ওসি মোস্তাফিজুর রহমান জানান, নির্যাতিত নারীকে সসম্মানে মুক্ত করা হয়েছে। এ ঘটনায় মামলা হয়েছে।

দৈনিক কালের খবর নিয়মিত পড়ুন এবং বিজ্ঞাপন দিন..

কালের খবর মিডিয়া গ্রুপ লিমিটেডের একটি প্রতিষ্ঠান
Desing & Developed BY ThemesBazar.Com