রবিবার, ০৫ ডিসেম্বর ২০২১, ০৮:৪০ পূর্বাহ্ন

সংবাদ শিরোনাম :
প্রধান শিক্ষিকার বিরুদ্ধে দুর্নীতির অভিযোগ, তদন্ত করছে দুদক ও মাউশি। কালের খবর তাড়াশে সেচ্ছাসেবকলীগের সম্মেলন অনুষ্ঠিত। কালের খবর যশোর সদরে ইউপি নির্বাচন ৫ জানুয়ারি। কালের খবর কুমড়া বড়ি তৈরি করতে ব‍্যস্ত তাড়াশের কারিগররা। কালের খবর বাঘারপাড়ায় নির্বাচনী সহিংসতায় চেয়ারম্যান প্রর্থীসহ আহত ২০-অফিস ভাংচুর। কালের খবর যশোর সদর হাসপাতালে দালালদের কাছে জিম্মি রোগীরা। কালের খবর উৎপাদনে নতুন ‘দেশি মুরগি’, ৮ সপ্তাহে হবে এক কেজি। কালের খবর ইউপি নির্বাচনে শাহজাদপুরের ১০ ইউনিয়নে আ.লীগের মনোনয়ন পেলেন যারা। কালের খবর যশোরের শার্শায় শোকজের জবাবের আগেই যুবলীগ নেতা বহিষ্কার! কালের খবর জাতীয় শ্রমিক লীগের উদ্যোগে বীর মুক্তিযোদ্ধা ফজলুল হক মন্টুর প্রথম মৃত্যু বার্ষিকী পালিত। কালের খবর
মহাসড়কে দাপিয়ে বেড়াচ্ছে ত্রি-চক্র যান, নিরব ভুমিকায় হাইওয়ে পুলিশ। কালের খবর

মহাসড়কে দাপিয়ে বেড়াচ্ছে ত্রি-চক্র যান, নিরব ভুমিকায় হাইওয়ে পুলিশ। কালের খবর

মোঃ আশরাফ উদ্দীন, চট্রগ্রাম,সীতাকুণ্ড প্রতিনিধি, কালের খবর : নিষেধাজ্ঞা অমান্য করে ঢাকা-চট্রগ্রাম মহাসড়কের সীতাকুণ্ড অঞ্চলে অবৈধভাবে চলাচল করছে তিন চাকার যানবাহন। প্রায়ই ঘটছে দুর্ঘটনা। এসব যানবাহনের চলাচল বন্ধ করতে হাইওয়ে পুলিশ যথেষ্ট তৎপর না বলে জানাম স্থানীয়রা।

মহাসড়কে দাড়ালেই দেখা যায়, ঢাকা-চট্রগ্রাম মহাসড়কে সীতাকুণ্ড দিয়ে উত্তরঞ্চলের বিভিন্ন জেলা থেকে চট্রগ্রামগামী দূরপাল্লার গাড়ি চলাচল করছে। বিপরীত দিকে চট্রগ্রাম ছেড়ে আসা গাড়ি চলাচল করছে। আর পাল্লা দিয়ে ছুটছে তিন চাকার বিভিন্ন ধরনের গাড়ি। আছে নছিমন, করিমন, ভটভটি, ব্যাটারিচালিত অটোরিকশা, ভ্যান।

২০১৫ সাল থেকে দেশের ২২টি মহাসড়কে তিন চাকার যান চলাচলে নিষেধাজ্ঞা রয়েছে।

মহাসড়কের সীতাকুণ্ড অঞ্চলে প্রতিনিয়ত ঘটছে নানান দুর্গটনা আর এসবের বেশির ভাগের কারণ হচ্ছে তিন চাকার যান চলাচল।এসব বিষয় নিয়ে হাইওয়ে পুলিশের সাথে কথা বলতে গেলে টেরীয়াইল হাইওয়ে পুলিশের ডিউটি অফিসার অপুল কথা বলতে নারাজা।নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক অনেকেই বলে টেরীয়াইল হাইওয়ে পুলিশ পাড়ীর সহযোগিতায় এসব তিন চাকার গাড়ী চলাচল করে।পাড়ীর সামনে দিয়েই প্রতিদিন চলাচল করতেছে শতশত গাড়ী।দর্শকের ভূমিকা পালন করতেছে হাইওয়ে। এ ধরনের তিন চাকার যানবাহনের মহাসড়কে চলাচল অবিলম্বে বন্ধ হওয়া দরকার। না হলে অকালে আরও অনেক মানুষের প্রাণ যাবে।

নাম প্রকাশ না করার শর্তে এক সি,এন,জি চালক বলেন, ‘নিষেধের বিষয়টি আমি জানি। কিন্তু জীবিকার তাগিদে জীবনের ঝুঁকি নিয়ে মহাসড়কে যাই। এ ছাড়া আমরা অনেকটা পুলিশদের ম্যানেজ করেই গাড়ি চালাই। তা না হলে কি মহাসড়কে গাড়ি চালানো যায়।

দৈনিক কালের খবর নিয়মিত পড়ুন এবং বিজ্ঞাপন দিন..

কালের খবর মিডিয়া গ্রুপ লিমিটেডের একটি প্রতিষ্ঠান
Desing & Developed BY ThemesBazar.Com