বৃহস্পতিবার, ০২ ডিসেম্বর ২০২১, ০৩:২৩ পূর্বাহ্ন

সংবাদ শিরোনাম :
প্রধান শিক্ষিকার বিরুদ্ধে দুর্নীতির অভিযোগ, তদন্ত করছে দুদক ও মাউশি। কালের খবর তাড়াশে সেচ্ছাসেবকলীগের সম্মেলন অনুষ্ঠিত। কালের খবর যশোর সদরে ইউপি নির্বাচন ৫ জানুয়ারি। কালের খবর কুমড়া বড়ি তৈরি করতে ব‍্যস্ত তাড়াশের কারিগররা। কালের খবর বাঘারপাড়ায় নির্বাচনী সহিংসতায় চেয়ারম্যান প্রর্থীসহ আহত ২০-অফিস ভাংচুর। কালের খবর যশোর সদর হাসপাতালে দালালদের কাছে জিম্মি রোগীরা। কালের খবর উৎপাদনে নতুন ‘দেশি মুরগি’, ৮ সপ্তাহে হবে এক কেজি। কালের খবর ইউপি নির্বাচনে শাহজাদপুরের ১০ ইউনিয়নে আ.লীগের মনোনয়ন পেলেন যারা। কালের খবর যশোরের শার্শায় শোকজের জবাবের আগেই যুবলীগ নেতা বহিষ্কার! কালের খবর জাতীয় শ্রমিক লীগের উদ্যোগে বীর মুক্তিযোদ্ধা ফজলুল হক মন্টুর প্রথম মৃত্যু বার্ষিকী পালিত। কালের খবর
তাড়াশে সরিষা-ধান ক্ষেতে লেটুরা পোকার আক্রমণে দিশেহারা কৃষক। কালের খবর

তাড়াশে সরিষা-ধান ক্ষেতে লেটুরা পোকার আক্রমণে দিশেহারা কৃষক। কালের খবর

আতিকুল ইসলাম তাড়াশ (সিরাজগঞ্জ)প্রতিনিধি, কালের খবর  :  সগুনা ইউনিয়নের কুন্দইল গ্রামের ভুক্তভোগী কৃষক তৈয়ব আলী জানান, এবছর ১৬ বিঘা জমিতে তিনি সরিষার আবাদ করেছেন। আর ১০ থেকে ১২ দিন পর জমি থেকে পাকা সরিষা তুলে বাড়িতে নেওয়া যেত। কিন্তু এরই মধ্যে অসংখ্য লেটুরা পোকা আক্রমণ করে সরিষার আধা পাকা দানা চেটে খেয়ে ফেলছে।
একই গ্রামের আরেক ভুক্তভোগী কৃষক আজিজল রহমান বলেন, লেটুরা পোকা সরিষার ক্ষেত থেকে বোরো ধানে ছড়িয়ে পড়ছে। পোকাগুলো সদ্য রোপণকৃত ধান গাছের কাণ্ড খেয়ে নিচ্ছে।
সরিষার ক্ষেত ও বোরো ধানে লেটুরা পোকার আক্রমণে অনুরূপ ক্ষতিগ্রস্ত হয়ে পড়েছেন সগুনা ইউনিয়নের কুন্দইল, ধাপতেতুলিয়া, কামাড়শন, মাকোড়শনসহ বেশ কয়েকটি গ্রামের হাজারো কৃষক।
উপজেলা কৃষি বিভাগ জানিয়েছেন, এবছর ৪ হাজার ৩শ ৫০ হেক্টর জমিতে সরিষার আবাদ করা হয়েছে। আর বোরো ধান আবাদের লক্ষ্যমাত্রা নির্ধারণ করা হয়েছে ২২ হাজার ২শ হেক্টর জমিতে।
সরেজমিনে বুধবার বিকেলে কুন্দইল ও ধাপতেতুলিয়া গ্রাম এলাকার বিস্তীর্ণ মাঠে দেখা গেছে, সরিষার গাছে ছোট-বড় অসংখ্য লেটুরা পোকা লেগে আছে। আর বোরো ধানের জমির মধ্যে যেখানে লেটুরা পোকা রয়েছে, সেখানে একটি ধান গাছেরও কান্দ নেই। সব পোকায় খেয়ে নষ্ট করে ফেলেছে।
এ প্রসঙ্গে উপজেলা কৃষি কর্মকর্তা লুৎফুননাহার লুনা বলেন, ‘সরিষার ক্ষেতে কীটনাশক স্প্রে করতে বলা হয়েছে। অথবা চিটা গুড়ের সাথে কীটনাশক মিশিয়ে বড়ি তৈরি করে তা ছিটিয়ে দিতে বলা হয়েছে কৃষকদের। বোরো ধানের জমির পোকা বিস্তার লাভ করতে পারবে না। পানিতে পড়ে এমনিতেই মরে যাবে।’

দৈনিক কালের খবর নিয়মিত পড়ুন এবং বিজ্ঞাপন দিন..

কালের খবর মিডিয়া গ্রুপ লিমিটেডের একটি প্রতিষ্ঠান
Desing & Developed BY ThemesBazar.Com