রবিবার, ২২ নভেম্বর ২০২০, ১০:৪৯ পূর্বাহ্ন

সংবাদ শিরোনাম :
জনগণের প্রতি মানবিক আচরণ সেবা অব্যাহত রাখতে হবে-আইজিপি। কালের খবর বিএফইউজের নির্বাচনে বিজয়ী সভাপতি এম আবদুল্লাহ ও মহাসচিব নুরুল আমিন রোকন। কালের খবর হবিগঞ্জ প্রেসক্লাবে সংবাদ সম্মেলনে : চুনারুঘাটে বাসুদেব মন্দিরের কোটি টাকা আত্মসাতের অভিযোগ। কালের খবর শিকলে বন্দি ২০ বছর পীরগঞ্জের মুক্তারুল। কালের খবর কবিরাজির অযুহাতে আটকে রেখে ধর্ষণের অভিযোগ কবিরাজ জেলহাজতে। কালের খবর হবিগঞ্জে ৩ ইটভাটাকে ১৩ লাখ টাকা জরিমানা করেছে পরিবেশ অধিদপ্তর। কালের খবর  ইত্তেফাকের কলকাতা প্রতিনিধির বাবার ইন্তেকাল। কালের খবর সরিষাবাড়ীতে প্রকল্পের অর্থ আত্মসাতের অভিযোগ : মহিলা কলেজের তিন শিক্ষক বরখাস্ত। কালের খবর ঢাকায় চার ঘণ্টায় ৯ বাসে অগ্নিকাণ্ড, জনমনে আতঙ্ক। কালের খবর বাংলাদেশ প্রাথমিক শিক্ষক সাহিত্য পরিষদের কেন্দ্রীয় পূর্ণাঙ্গ কার্যনির্বাহী পরিষদ গঠিত। কালের খবর
ডেমরায় খানাখন্দ ও কর্দমাক্ত সড়কে সীমাহীন দুর্ভোগ। কালের খবর

ডেমরায় খানাখন্দ ও কর্দমাক্ত সড়কে সীমাহীন দুর্ভোগ। কালের খবর

ঢাকা দক্ষিণ সিটি কর্পোরেশনের (ডিএসসিসি) ৬৪ ও ৬৫ নম্বর ওয়ার্ডের কিছু অংশসহ ৬৬ থেকে ৭০ নম্বর ওয়ার্ড এলাকা হচ্ছে রাজধানীর ডেমরা থানা এলাকা। শহরের খুব কাছাকাছি হওয়ায় স্বাধীনতার পর থেকে এখানে ঘনবসতি বাড়তে থাকে। বর্তমানে এখানে স্থানীয় ও ভাড়াটিয়াসহ ১০ লক্ষাধিক মানুষের বসবাস।এছাড়াও সরকারি-বেসরকারি চাকুরীজীবি, ব্যবসায়ীস, শ্রমিক ও অন্যান্য পেশার মানুষসহ রূপগঞ্জ-সিদ্ধিরগঞ্জ ও আশপাশের এলাকার আরও লক্ষাধিক মানুষের চলাচল ডেমরায়। এদিকে ডেমরা হচ্ছে রাজধানীর প্রবেশদ্বার। তাই এখানে মানুষের চলাচল অনেক বেশি। আর বর্ধিত মানুষের এ চলাচলকে কেন্দ্র করে ডেমরাকে শহরের শেষ স্টপেজ করা হয়েছে।

 
 সরেজমিন দেখা গেছে, কিছুদিন আগেই শুরু হয়েছে ডেমরা-যাত্রাবাড়ী সড়কের ৬ লেন উন্নয়নের কাজ। এতে ডেমরার ষ্টাফ কোয়ার্টারে সড়ক খোঁড়াখুড়িসহ সড়ক উন্নয়নে চলছে নানা কর্মযজ্ঞ। এদিকে ষ্টাফ কোয়ার্টারেই এবারের বর্ষায় ডেমরা-রামপুরা সড়ক ব্যাপকভাবে বিধ্বস্ত হয়েছে। ফলে যান চলাচল ও যাত্রী-পথচারী দুর্ভোগ ব্যাপক আকার ধারণ করেছে।

এছাড়া এ সড়কে নিয়ন্ত্রণহীনভাবে অতিরিক্ত পণ্যবাহী ভারী যানবাহন চলাচল করছে বলেও সড়কের ব্যাপক ক্ষতি হয়েছে। সড়কে সৃষ্টি হয়েছে বড় বড় গর্তসহ খানাখন্দ। আর ওইসব বড় বড় গর্ত ও খানাখন্দে পানি জমে থাকে বলে প্রায়ই ঘটছে দুর্ঘটনা। রিকশা উল্টে পড়ে যাওয়ার ঘটনা ঘটেছে অহরহ। আর কর্দমাক্ত এ সড়কে মানুষের স্বাভাবিক চলাচল ব্যাহত হচ্ছে।

এ বিষয়ে ডেমরার হাজী হোসেন প্লাজা শপিংমলের ব্যবসায়ী মো. সোহেল বলেন, আমাদের মার্কেটের পূর্বপাশেই বাস স্টপেজ করাতে সড়কের ব্যাপক ক্ষতি হয়। আর এ স্টপেজেই বড় বড় গর্ত তৈরী হয়েছে। এতে মার্কেটের ফুপাত দিয়েও হাঁটা যায়না। এছাড়া সড়কের ওইসব গর্তসহ খানাখন্দে যানবাহন হেলেদুলে চলে। এতে দুর্ঘটনার আশংকা থাকেই।

দুর্ভোগের বিষয়ে ডেমরা-রামপুরা সড়কে চলাচলকারী যাত্রী মো.ছালাম বলেন, আমি প্রতিদিন এ সড়ক দিয়ে যাতায়াত করি। ডেমরা-রামপুরা সড়কের বেশ কিছু অংশে খানা-খন্দ রয়েছে। এতে বৃষ্টির সময় যাত্রী দুর্ভোগ কয়েকগুণ বৃদ্ধি পায়।

এ বিষয়ে ডেমরা জোনের টিআই মো. সাইফুল ইসলাম বলেন, দীর্ঘ সময় ধরে ডেমরা-রামপুরা সড়কের ষ্টাফ কোয়ার্টার এলাকায় বড় বড় গর্ত সৃষ্টি হয়েছে। এছাড়া এ সড়কের কিছু অংশের খুব খারাপ অবস্থা। তাই দুর্ভোগ অনেকটাই বেড়েছে। এছাড়া সড়কে ড্রেনেজ ব্যবস্থা না থাকায় বৃষ্টির পানি সরতে পারেনা বলে সড়কের বেশি ক্ষতি হচ্ছে।

এ বিষয়ে ঢাকা সড়ক বিভাগের নির্বাহী প্রকৌশলী মো. শামীম আল মামুন মোবাইল ফোনে বলেন, ডেমরা-রামপুরা সড়কে দীর্ঘ দিন ধরে ধারাবাহিকভাবে সংস্কার কাজ চলছে। তবে বৃষ্টির কারণে ডেমরা এলাকায় ওই সড়কের কাজটা করা যাচ্ছেনা। বৃষ্টি কমলেই দ্রুত কাজ করা হবে।

দৈনিক কালের খবর নিয়মিত পড়ুন এবং বিজ্ঞাপন দিন..

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

কালের খবর মিডিয়া গ্রুপ লিমিটেডের একটি প্রতিষ্ঠান
Desing & Developed BY ThemesBazar.Com